ব্যবহারকারীদের ব্যক্তিগত তথ্য ফাঁস, ৫ লাখ ইউরো জরিমানার মুখে ফেসবুক

এই লেখাটি 24 বার পঠিত

যুক্তরাজ্যের তথ্য নিরাপত্তা আইনের আওতায় ৫ লাখ ইউরো জরিমানা হতে পারে ফেসবুকের। ব্যবহারকারীদের ব্যক্তিগত তথ্য ফাঁস হওয়ায় এই বিপুল পরিমাণ অর্থ গুনতে হতে পারে তাদের। খবর বিবিসি অনলাইন।

যুক্তরাজ্যের ইনফরমেশন কমিশনার’স অফিস (আইসিও) জানিয়েছে, ডাটা ফার্ম ক্যামব্রিজ অ্যানালিটিকা ফেসবুক ব্যবহারকারীদের তথ্য মুছে দিয়েছে কিনা তা নিশ্চিত করতে পারেনি ফেসবুক। তারা ক্যামব্রিজ অ্যানালিটিকার মূল কোম্পানি, এসসিএল ইলেকশনসের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেবে। ‘তথ্য ব্যবসায়ীদের’ থেকে রাজনৈতিক দলগুলো এভাবে তথ্য কিনতে পারে বলেও আশঙ্কা প্রকাশ করছে আইসিও।

এ বিষয়ে দ্রুতই জবাব দেবে বলে জানিয়েছে ফেসবুক। ২৮ দিনের মাঝে এর প্রতিবাদ জানাতে পারবে তারা।

১৬ মাস আগে ক্রিস্টোফার ওয়াইলি নামে ক্যামব্রিজ অ্যানালিটিকার এক প্রাক্তন কর্মী জানান, কয়েক লাখ ফেসবুক ব্যবহারকারীর তথ্য অবৈধভাবে ব্যবহার করেছে কোম্পানিটি। তার এ মন্তব্যের জের ধরে আইসিও দেখে, ফেসবুক নিজেরই নিয়ম ভঙ্গ করেছে এবং ক্যামব্রিজ অ্যানালিটিকা আদৌ ব্যবহারকারীদের তথ্য ডিলিট করেছে কিনা তা নিশ্চিত করেনি। ক্যামব্রিজ অ্যানালিটিকা দাবি করে তারা ২০১৫ সালেই এসব তথ্য ডিলিট করে দিয়েছে, তবে এর বিপরীতে প্রমাণ পেয়েছে আইসিও। তারা আসলে অন্যদেরকে দিয়েছে এসব তথ্য।

আইসিওর এ পদক্ষেপের কথা জানতে পেরে ক্রিস্টোফার ওয়াইলি বলেন, ‘কয়েক মাস আগে যুক্তরাজ্যের কর্তৃপক্ষকে আমি ফেসবুক এবং ক্যামব্রিজ অ্যানালিটিকার কথা জানাই। ওই প্রমাণের প্রেক্ষিতে আজ ফেসবুককে যুক্তরাজ্যের আইনে সর্বোচ্চ অর্থদণ্ড দেওয়া হচ্ছে। ক্যামব্রিজ অ্যানালিটিকা এবং এর পরিচালকদেরও শাস্তির আওতায় আনা হবে।’

Aviation News