দুর্নীতি ও অবৈধ সম্পদ : সিভিল এভিয়েশনের প্রধান প্রকৌশলীকে দুদকে তলব

এই লেখাটি 45 বার পঠিত

সিভিল এভিয়েশনের মেইনটেন্যান্স, কনস্ট্রাকশন, কেনাকাট ও ফান্ড ম্যানেজমেন্টের শত শত কোটি টাকার দুর্নীতি ও আত্মসাতের অভিযোগে সংস্থাটির প্রধান প্রকৌশলী সুধেন্দু বিকাশ গোস্বামীকে তলব করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

সোমবার দুদকের সহকারী পরিচালক ও অনুসন্ধান কর্মকর্তা খায়রুল হকের স্বাক্ষরে পাঠানো নোটিশে সুধেন্দু বিকাশ গোস্বামীকে ১২ জুন দুদকে হাজির হতে বলা হয়েছে।অন্যদিকে, সিভিল এভিয়েশন অথরিটির অপর একটি দুর্নীতির অভিযোগ অনুসন্ধানে সুধেন্দু বিকাশ গোস্বামীকে ১০ জুন দুদকে হাজির হতে বলা হয়েছে। এ চিঠিটি দেন দুদকের সহকারী পরিচালক মো. সালাম আলী মোল্লা। এর আগেও দুদক সিভিল এভিয়েশনের প্রধান প্রকৌশলীকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছিল। তাকে জিজ্ঞাসাবাদের পাশাপাশি ঘুষ দিয়ে অনিয়ম ও দুর্নীতির মাধ্যমে সিভিল এভিয়েশনের কোটি কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগ অনুসন্ধানে ৯ প্রতিষ্ঠানের মালিককে নথিপত্রসহ তলব করেছিল দুদক। গত বছরের অক্টোবরে শুরু হয় এ অনুসন্ধান কাজ।

ন্যাশনাল ট্রেডার্সসহ ৯টি প্রতিষ্ঠানের মালিক-ব্যবসায়ী মো. আবদুল হামিদ সিভিল এভিয়েশনের প্রধান প্রকৌশলী সুধেন্দু বিকাশ গোস্বামী ও তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী এম. মাকসুদুল ইসলামকে নির্দিষ্ট হারে ঘুষ দিয়ে অনিয়ম ও দুর্নীতির মাধ্যমে কোটি কোটি টাকা আত্মসাৎ করেছেন- এমন অভিযোগের ভিত্তিতে অনুসন্ধান শুরু করে দুদক। অভিযোগ অনুসন্ধানের প্রথম ধাপে গত বছরের ১৯ অক্টোবর সিভিল এভিয়েশনের প্রধান প্রকৌশলী ও তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলীকে জিজ্ঞাসাবাদ করে দুদক।

Aviation News