বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সকে ধ্বংস করেছে বিএনপি

এই লেখাটি 240 বার পঠিত

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে শুভেচ্ছা জানান ইতালি আওয়ামী লীগের নেতারা। ছবি: ফোকাস বাংলা

সরকার তাঁর বিরুদ্ধে দায়ের করা কোনো মামলা প্রত্যাহার করেনি উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, দেশের শান্তি ও উন্নয়ন নিশ্চিত করতে হলে যারা দুর্নীতি, সন্ত্রাস করবে এবং জঙ্গিবাদে জড়াবে তাদের অবশ্যই বিচার করতে হবে। তিনি বলেন, ‘আমরা দেশে একটি শান্তিপূর্ণ পরিবেশ সৃষ্টি করতে চাই। আমরা দেশকে উন্নত এবং জনগণের ভাগ্যের পরিবর্তন করতে চাই। এটা তখনই সম্ভব হবে, যখন আমরা দুর্নীতি, জঙ্গিবাদ ও স্বজনপ্রীতি নিয়ন্ত্রণ এবং অপসারণ করতে পারব।’

প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা মঙ্গলবার রাতে রোমের পার্কো দ্য প্রিনসিপি গ্র্যান্ড হোটেল অ্যান্ড এসপিএতে আওয়ামী লীগের ইতালি শাখা আয়োজিত এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন। খবর বাসসের।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আদালত খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে রায় দিয়েছেন, যে মামলা ১০ বছর ধরে চলেছে। এখানে আমাদের তো করার কিছু নেই। আর আমরা যদি করতামই তাহলে ১০ বছর তো চলতে দিতাম না। ২০০৮ সালে যখন ক্ষমতায় আসলাম, তখনই তো শেষ করতে পারতাম।’
শেখ হাসিনা বলেন, যখন মামলাটি করা হয়, তখন ব্যারিস্টার রফিকুল হক বলেছিলেন, খালেদা জিয়া ওই পরিমাণ টাকা জমা করে দিলেই মামলাটি প্রত্যাহার হয়ে যাবে। কিন্তু তিনি (খালেদা জিয়া) টাকার মায়া ছাড়তে পারেননি।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, তখন টাকার যে মূল্য ছিল, তা থেকে এক কোটি টাকা দিয়ে তিনি চারটি ফ্ল্যাট কিনতে পারতেন, এটিই হচ্ছে বাস্তবতা। কাজেই তিনি টাকার মায়া ত্যাগ করতে পারেননি বলেই আজকে এতিমের টাকা আত্মসাতের কারণে তিনি কারাগারে।
রেমিট্যান্স পাঠানোর মাধ্যমে প্রবাসী বাংলাদেশিদের অবদানের কথা স্মরণ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, দেশের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ বৃদ্ধিতেও তাঁদের বড় অবদান রয়েছে। তিনি এ সময় প্রবাসীদের কল্যাণে তাঁর সরকার গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপও তুলে ধরেন। ঢাকা-রোম সরাসরি বিমান ফ্লাইট পুনরায় চালুর প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি সরকারের দুর্নীতি এবং তাদের ভুল সিদ্ধান্ত বিমানকে (বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনস) ধ্বংস করে দিয়েছে। লাভজনক হলে আমরা পুনরায় ঢাকা-রোম ফ্লাইট চালু করব।’

Aviation News