হজ এজেন্সি’র বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ, নোটিশ জমে পাহাড়

২০১৭ সালে হজ সংশ্লিষ্ট বিষয় নিয়ে হজ এজেন্সিগুলোর ওপর পাহাড় পরিমাণ কারণ দর্শানোর নোটিশ জমা পড়েছে। অভিযুক্ত হজ এজেন্সিগুলোর বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নিতে ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাগণ গলদঘর্ম পোহাচ্ছেন। ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে প্রকাশিত হজ ক্যালেন্ডারের তারিখ শেষ হবার পরেও তদন্ত কার্যক্রম সম্পন্ন করা সম্ভব হয়ে উঠেনি। হজ ক্যালেন্ডারের তারিখ অনুযায়ী বৈধ হজ এজেন্সি’র তালিকাও প্রকাশ করা সম্ভব হয়নি। তবে ধর্ম মন্ত্রী অধ্যক্ষ মতিউর রহমান ও ভারপ্রাপ্ত ধর্ম সচিব মো: আনিছুর রহমান সম্প্রতি এক প্রেস ব্রিফিংয়ে ঘোষণা করেছেন আগামী ১০ ফেব্রুয়ারীর মধ্যে সউদী আরব থেকে দ্বি-পাক্ষিক হজ চুক্তি’র চূড়ান্ত কাগজ পাওয়ার সাথে সাথেই হজ প্যাকেজ ঘোষণা করা হবে। হজ নিয়ে কোনো প্রকাশ অনিয়ম ও প্রতারণা বরদাশত করা হবে না বলেও ধর্মমন্ত্রী ঐ ব্রিফিংয়ে উল্লেখ করেন। হজ কার্যক্রমে নানা অনিয়ম ও প্রতারণা, মক্কায় হজের শেষে সরকারী বাড়ীতে বেসরকারী হাজী রাখা, হজের নামে মানবপাচারসহ হারিয়ে যাওয়া হাজীদের মক্কাস্থ মিশন থেকে ১২ ঘন্টা থেকে ১৮ ঘন্টা বিলম্বে গ্রহণের অভিযোগে প্রায় তিন শতাধিক হজ এজেন্সি’র বিরুদ্ধে কারণ দর্শানোর নোটিশ জারি করা হয়েছে। এর মধ্যে ২শ’ ৪৫টি অভিযোগ পাওয়া গেছে হজ এজেন্সি’রগুলোর বিরুদ্ধে অনিয়ম প্রতারণ ও দুর্নীতি এবং হাজীদের কষ্ট দেয়ার জন্য।
বেসরকারী হজ এজেন্সি মেসার্স এম নূর-ই-মদিনা হজ ট্রাভেলস এন্ড ট্যুরস (৯৩৩)-এর বিরুদ্ধে হজের নামে ৫জন মহিলাকে সউদীতে মানবপাচারের অভিযোগে তদন্ত পূর্বক শাস্তিমূল ব্যবস্থা নিতেও কড়া নোটিশ জারি করা হয়েছে। উল্লেখিত হজ এজেন্সি’র মালিক মো: সেলিম উল্লাহ সউদী আরব থেকে পাচারকৃত মহিলাদের দেশে ফিরিয়ে না এনে গা-ঢাকা দিয়েছে। আগামী ২৮ জানুয়ারী সউদী আরব থেকে পাচারকৃত মহিলা কুলসুম আরা বেগম, রাজিয়া বেগম, জমিলা আক্তার, রোজিনা আক্তার ও জোসনা আক্তারকে বাংলাদেশে ফেরত আনার প্রমাণাদিস ধর্ম মন্ত্রণালয়ে স্ব-শরীরে উপস্থিত হবার জন্য অভিযুক্ত হজ এজেন্সি’র মালিক মো: সেলিম উল্লাহকে কড়া নোটিশ দেয়া হয়েছে। গতকাল তার মোবাইলে একাধিকবার যোগাযোগ করে তার মোনাইল বন্ধ পাওয়া গেছে। উল্লেখিত পাচারকৃত ৫ মহিলার নামের পার্শ্বে দেয়া মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে সকল ফোন বন্ধ পাওয়া গেছে। তবে কুলসুম আরা বেগমের নামে দেয়া মোবাইল ফোন নম্বরটিতে ( ০১৮১৯৩৩৯৭১৫ ) যোগাযোগ করা হলে বৃদ্ধ মহিলা বলেন এটা ভুয়া নম্বর নেয়া হয়েছে। হাবের মহাসচিব মো: শাহাদাত হোসাইন তসলিম হজের নামে ৫ জন মহিলাকে সউদীতে পাঠানোর বিষয়টি তিনি জানেন বলে স্বীকার করেছেন। এক প্রশ্নের জবাবে হাব মহাসচিব তসলিম বলেন, হজের নামে কেউ মানবপাচারের ঘটনায় প্রমাণিত হলে হাবের পক্ষ থেকেও তার বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে। হাব মহাসচিব বলেন, ৫শতাধিক হজ এজেন্সি’র বিরুদ্ধে ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে নোটিশ করা হয়নি। একেকটি হজ এজেন্সি ৭/৮ টি নোটিশও পেয়েছে। সর্বোচ্চ ২শ’ হজ এজেন্সি’র বিরুদ্ধে নোটিশ করা হয়েছে বলে হাব মহাসচিব দাবী করেন। তিনি বলেন, গত ১৬ জানুয়ারী ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে ১শথ’ ৪০ টি হজ এজেন্সিকে হারিয়ে যাওয়া হাজী বিলম্বে গ্রহণের অভিযোগে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া সঠিক হয়নি। এ ব্যাপারে হাবের পক্ষ থেকে ধর্ম মন্ত্রণালয়ে যোগাযোগ করে তা’ অব্যহতির জন্য অনুরোধ জানানো হবে বলেও তিনি উল্লেখ করেন। হজের সময়ে মক্কাস্থ হজ মিশনে হাবের পক্ষ থেকে নির্ধারিত কমিটি’র সদস্যরা হারিয়ে যাওয়া হাজীদের খাবার খাইয়ে দ্রæত তাদের স্ব স্ব হজ এজেন্সি’র বাড়ীতে পৌছে দেয়ার দায়িত্ব পালন করেছে। এ ব্যাপারে হারিয়ে যাওয়া হাজীদের বিলম্বে গ্রহণের অভিযোগে নোটিশ করে অহেতুক হয়রানি করা হচ্ছে। হাব মহাসচিব বলেন, ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে প্রকাশিত হজ ক্যালেন্ডার প্রকাশের জন্য অভিনন্দন জানাই। তবে নতুন হজ ক্যালেন্ডারের অধিকাংশ কার্যক্রমের সময়সীমাই ফেল করেছে। তিনি বলেন, শতকরা ৯৫% হজযাত্রী সউদী আরবে বেসরকারী হজ এজেন্সিগুলো পাঠিয়ে থাকেন। হজ ক্যালেন্ডারের কর্মসূচি প্রণয়নে হাবের মতামত নেয়া উচিত ছিল।
অভিযুক্ত হজ এজেন্সিগুলোর বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নিতে ধর্ম মন্ত্রণালয় তিনটি উচ্চ পর্যায়ের তদন্ত কমিটি গঠন করেছে। গঠিত তদন্ত কমিটি অভিযুক্ত হজ এজেন্সিগুলোর একাধিকবার শুনানী নিয়ে তাদের প্রতিবেদন দাখিলে ব্যস্ত রয়েছে। গত ১৫ জানুয়ারী এসব তদন্ত রিপোর্ট প্রকাশ করার কথা থাকলেও তা’ সম্ভব হয়ে উঠেনি। সম্প্রতি ধর্ম মন্ত্রণালয়ের যুগ্ন সচিব (হজ) মো: হাফিজ উদ্দিন তার দপ্তরে ইনকিলাবকে বলেন, অভিযুক্ত হজ এজেন্সিগুলোর শুনানী কার্যক্রম শেষ হয়েছে শিগগিরই এসব তদন্ত প্রতিবেদন পেশ করা হলে ধর্ম মন্ত্রী অধ্যক্ষ মতিউর রহমানের স্বাক্ষরের পর দায়ী এজেন্সিগুলোর শাস্তি বা অব্যহতি কার্যকর করা হবে।
ধর্ম মন্ত্রণালয় বিষয়ক সংসদীয় স্থায়ী কমিটি’র সভাপতি ও সউদী-বাংলাদেশ সংসদীয় স্থায়ী কমিটি’র চেয়ারম্যান বজলুল হক হারুন এমপি সম্প্রতি সোনারগাও হোটেলে ধর্ম মন্ত্রী’র উপস্থিতিতে সউদী থেকে আগত সউদী মুয়াসসাসা’র ডিজি ওমর সিরাজ ওমর আকবরের সাথে বৈঠকে বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দিকনির্দেশনায় সুষ্ঠু ও সুন্দর হজের কার্যক্রম এগিয়ে চলছে। তিনি ঘোষণা দেন হজ নিয়ে কোনো অনিয়ম-দুর্নীতি বরদাশত করা হবে না।
এদিকে, ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সূত্র জানায়, ২০১৭ সালের হজ মৌসুমে সউদী আরব পর্বে অভিযোগের সংখ্য ৮৯ টি এবং বাংলাদেশ পর্বে হজ নিয়ে অনিয়ম ও প্রতারণার অভিযোগের সংখ্যা ১শ’ ৫৬ টি। মুয়াসসাসায় অভিযুক্ত হজ এজেন্সি’র সংখ্যা ৪৬টি, বিলম্বে মুয়াল্লেম ফি প্রদাণে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া হয়েছে ৬৬ টি এজেন্সিকে, হজের পর সরকারী হাজী দেশে চলে আসার পর মক্কায় ১, ২, ৩ ও ৫ নম্বর সরকারী বাড়ীতে হাজী রাখার দায়ে তেরটি হজ এজেন্সি’র বিরুদ্ধে কারণ দর্শানোর নোটিশ জারি করা হয়েছে। এছাড়া ১৮ ঘন্টার উর্ধ্বে হারানো হাজীদের সংগ্রহ না করার কারণে ৩৭ টি এজেন্সিকে নোটিশ জারি করা হয়েছে। নোটিশ প্রাপ্ত এসব শত শত হজ এজেন্সি’র মালিকরা অনেক আগেই স্ব স্ব জবাব দিয়েছে বলে অনেকেই দাবী করেছেন। নোটিশ প্রাপ্ত এজেন্সি’র বিষয়গুলো নিস্পত্তি না হওয়ায় নিবন্ধিত হজযাত্রীগণ চরম হতাশায় ভুগছেন।

Aviation News

সম্পাদক: তারেক এম হাসান
যোগাযোগ: জোবায়ের অভি, ঢাকা, ফোন +৮৮ ০১৬৮৪৯৬৭৫০৪
ই-মেইল: jobayerovi@gmail.com
যুক্তরাস্ট্র অফিস
ইউএসএ সম্পাদক: মো. শহীদুল ইসলাম
৭১-২০, ৩৫ অ্যাভিনিউ, জ্যাকসন হাইটস, নিউইয়র্ক ১১৩৭২
মোবাইল: +১ (২১২) ২০৩-৯০১৩, +১ (২১২) ৪৭০-২৩০৩
ইমেইল: dutimoy@gmail.com
এডিটর ইন চিফ : মুজিবুর আর মাসুদ ইমেইল: muzibny@gmail.com
©সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত এভিয়েশন নিউজবিডি.কম ২০১৪-২০১৬