জেনে নিন ভারত ভ্রমণের খুঁটিনাটি

best-travel-1482010850পার্শ্ববর্তী দেশ হওয়ায় আমাদের জন্য ভারতে ভ্রমণে যাওয়া তুলনামূলক সহজ। তাই অনেক ক্ষেত্রেই দেশের বাইরে বেড়াতে যাওয়ার জন্য আমরা ভারতকে প্রথম পছন্দের তালিকায় রাখি। এর কারণ হলো প্রথমত ভারত ভ্রমণ সাশ্রয়ী, দ্বিতীয়ত কম ঝামেলার। কিন্তু এই কম ঝামেলার জায়গাটিতেই ঘটে নানা বিপত্তি। কেউ ভিসা পাননা, কেউ ভিসা থাকা স্বত্বেও যেতে পারেন না। এই সকল বিপত্তির কারণ হলো খুব ছোটো ছোটো কিছু তথ্য না জানা।  তাই আপনার যাতে করে কোনো বিপত্তির সম্মুখীন হতে না হয় সেই দিকটি খেয়াল রেখে ভারত ভ্রমণের এই খুঁটিনাটি বিষয়গুলোর আলোচনা।

ডলার, রুপির ব্যাপারে সতর্ক থাকুন: আপনার পাসপোর্টে যদি ডলার এন্ডোর্স করানো থাকে তাহলে অবশ্যই ডলার সাথে রাখবেন। কারণ, এন্ডোর্সকৃত ডলার সাথে না থাকলে আপনাকে সীমান্তে নানান প্রশ্নের সম্মুখীন হতে হবে। যদিও ভারত ভ্রমণে আইন অনুযায়ী ১০,০০০ রুপি সাথে রাখতে পারবেন, কিন্তু এই আইনটির বাস্তবায়ন নেই। তাই ভারতীয় রুপি সাথে থাকলে তা ইমিগ্রেসনে বলতে যাবেন না। এমনকি পকেট বা মানিব্যাগেও রাখবেন না। কারণ চেক করার সময় ভারতীয় কর্তৃপক্ষের হাতে এই রুপি ধরা পরলে বিপত্তির অন্ত থাকবে না। তাই, যদি সাথে ভারতীয় রুপি থাকে তাহলে সেটা নিরাপদ স্থানে লুকিয়ে নিয়ে সীমান্ত পার হবেন।

আপনার ইমিগ্রেশনের কাজটি শেষ হবার পর থেকে আর কারো হাতে পাসপোর্ট এবং টাকা ভাঙাতে দিবেন না। তা সে যেই পরিচয়ই দিক না কেনো। দালাল ও প্রতারক চক্র এই সুযোগে আপনার টাকা আর মূল্যবান তথ্য হাতিয়ে নিতে পারে। তাই একবার ইমিগ্রেসন শেষ হবার পর নিজের ডলার নিজেই ভাঙাবেন।

ঝক্কি এড়াতে ভ্রমণ কর আগেই দিয়ে দিন:  আপনাকে যেহেতু ভ্রমণ কর দিতেই হবে তাই তা ভ্রমণে যাবার আগেই সোনালি ব্যাংকে জমা দিয়ে দিন। তাহলে আপনার সীমান্তের ঝামেলা কমবে। আর আপনি সরাসরি ইমিগ্রেশনের কাজ শুরু কতে দিতে পারবেন।

ব্যাগ গোছাতে সতর্ক হোন: খুব স্বাভাবিকভাবেই আপনি যদি সব পোশাক একেবারে নতুন নতুন নিয়ে যেতে চান তাহলে অবশ্যই তা সন্দেহের সৃষ্টি করবে। তাই খুব বেশি পরিমাণে নতুন কাপড় নিবেন না। আর যদি কোনও কাপড়ে ট্যাগ থাকে তা অবশ্যই খুলে নেবেন।

ইমিগ্রেসনের জন্য তৈরি থাকুন: আপনাকে অবশ্যই জিজ্ঞাসা করবে আপনি কি করেন, কেনো ভারত যেতে চান। ছুটির কাগজপত্র আছে কিনা ইত্যাদি। ছুটির কাগজপত্র দেখতেও চাইবে। তাই ইমিগ্রেসনের জন্য তৈরি  থাকবেন। যদি আপনার ভিসা হয় মেডিকেল এটেন্ডেন্ট ভিসা তাহলে রোগী না নিয়ে যাবেন না। কারণ রোগী ছাড়া গেলে আপনাকে ইমিগ্রেসন থেকে ফেরত পাঠিয়ে দিবে।

দেখে শুনে হোটেল নিন: নানান মানের, নানান দামের হোটেল পাবেন আপনি। সেখান থেকে আপনার নিজের প্রয়োজন আর পছন্দ অনুসারে হোটেল নিবেন। তাই একটু খোঁজাখুঁজি করে তারপর হোটেল নিবেন। সামনে পেলেন বা সবাই উঠে বলে আপনিও উঠে যাবেন না। যেমন:  কলকাতার নিউমার্কেট এলাকাতে অনেক হোটেল থাকলেও এগুলোর ভাড়া একটু বেশি।  তাই আশেপাশের এলাকাগুলোতে খোঁজ করলে আপনি অনেক কম খরচে থাকতে পারবেন।

আইভেক এর নিয়ম মেনে চলুন: ভারত ভ্রমণে আইভেক এর নিয়ম কানুন মেনে চলা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। আইভেকের  নিয়ম কানুনে কিছু ছোট ছোট ভুল আপনার ভিসাও আটকে দিতে পারে। তাই আইভেকের জন্য প্রয়োজনীয় নিয়ম কানুন জেনে নিন।

আপনি ভারতের ভিসার শেষ হওয়ার ১ মাস আগে থেকেও নতুন করে ভিসার জন্য আবেদন করতে পারেন। কিন্তু ভিসার মেয়াদ শেষ হয়ে গেলে পড়বেন  বিপত্তিতে। তাই ভ্রমণের আগেই আরো একবার দেখে নিন আপনার আর ভিসার মেয়াদ কত দিন আছে। আর  প্রয়োজনীয়তা বুঝে ভিসার আবেদনটিও সেরে ফেলুন।

যান বাহন আর ভাড়ার ব্যাপারে খোঁজ খবর নিন: ভ্রমণকারীদের কাছ থেকে নানা উপায়ে বাড়তি পয়সা কামানোর খ্যাতি অন্যান্য দেশের মতো ভারতের ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য। তাই নানান ধরনের ফাঁদে পা না দিয়ে খোঁজ খবর নিন। স্থানীয়দের কাছে জিজ্ঞাসা করুন। দেখবেন আপনার অনেক খরচ বেঁচে যাবে। যেমন: বনগাঁ থেকে শিয়ালদহ লোকাল বাসে ২০ রুপিতে যেতে পারবেন। সময় লাগবে মাত্র ২ ঘণ্টা। কিন্তু আপনি যদি এই পথটুকু ভ্রমণকারীদের জন্য রাখা ভলভো বাসে সীমান্ত থেকে ওঠেন তাহলে ভাড়া গুণতে হবে ৩৪০-৩৮০ টাকা। আর সময় লাগবে ৪ ঘণ্টা। তাই বর্ডার থেকে ৩০ রুপী খরচ করে অটোতে বনগাঁ স্টেশন চলে যাবেন। সেখান থেকে ২০ রুপীতে শিয়ালদহ। এভাবে নানান দিকের যাতায়াত খরচ আপনি বাঁচিয়ে ফেলতে পারবেন একটু খোঁজখবর নেয়ার মাধ্যমে।

আনন্দময় হোক আপনার ভ্রমণ।

Aviation News

সম্পাদক: তারেক এম হাসান
যোগাযোগ: জোবায়ের অভি, ঢাকা, ফোন +৮৮ ০১৬৮৪৯৬৭৫০৪
ই-মেইল: jobayerovi@gmail.com
যুক্তরাস্ট্র অফিস
ইউএসএ সম্পাদক: মো. শহীদুল ইসলাম
৭১-২০, ৩৫ অ্যাভিনিউ, জ্যাকসন হাইটস, নিউইয়র্ক ১১৩৭২
মোবাইল: +১ (২১২) ২০৩-৯০১৩, +১ (২১২) ৪৭০-২৩০৩
ইমেইল: dutimoy@gmail.com
এডিটর ইন চিফ : মুজিবুর আর মাসুদ ইমেইল: muzibny@gmail.com
©সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত এভিয়েশন নিউজবিডি.কম ২০১৪-২০১৬