নতুন পাঁচ গন্তব্যে উড়বে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স

এই লেখাটি 13943 বার পঠিত
বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স

নতুন পাঁচ গন্তব্যে উড়বে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স।

মুনাফায় ফিরতে চায় বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স। সেই লক্ষ্যে আন্তর্জাতিক রুট নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণে গুরুত্ব দিচ্ছে জাতীয় পতাকাবাহী এ উড়োজাহাজ সংস্থাটি। চলতি বছরের মধ্যেই পাঁচ নতুন গন্তব্যে উড়াল দিতে চায় বিমান বাংলাদেশ। বিমানের পরিচালনা পর্ষদও সেই লক্ষ্যে কাজ করছে।
যদিও একসময় ২৬টি আন্তর্জাতিক গন্তব্যে ফ্লাইট পরিচালনা করতো বিমান। কিন্তু ক্রমাগত লোকসানের অজুহাত দেখিয়ে সেই রুটের ফ্লাইট পর্যায়ক্রমে বন্ধ করে দেওয়া হয়।

এভিয়েশন সংশ্লিষ্টরা বলছেন, বিমানকে লাভজনক করতে হলে প্রথমে দুর্নীতি বন্ধ করতে হবে। তারপর নতুন গন্তব্যে ফ্লাইট পরিচালনা করতে হবে। তাহলেই কেবল বিমান সুদিনে ফিরবে।

বিমানের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, বিমানের নতুন পাঁচ গন্তব্য হচ্ছে চীনের বাণিজ্যিক নগরী গুয়াংজু, সৌদি আরবের পবিত্র নগরী মদিনা, ভারতের দিল্লি, মালদ্বীপের মালে ও শ্রীলঙ্কার কলম্বো। তবে এরইমধ্যে দিল্লি ও মদিনায় ফ্লাইট চালুর সব প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হয়েছে। এমনকি এ দুই দেশের ফ্লাইট শিডিউলও ঘোষণা করা হয়েছে।

আর চীনের বাণিজ্যিক নগরী গুয়াংজুতে ফ্লাইট পরিচালনা করতে কেবল সেদেশের সিভিল এভিয়েশন অথরিটির অনুমতির অপেক্ষায় রয়েছে বিমান। তাদের চাওয়া সাপেক্ষে সব কাগজপত্র জমা দেওয়া হয়েছে। এখন অনুমতি পেলে আগামী ৩০ জুনের মধ্যে ফ্লাইট পরিচালনা করতে চায় বিমান। সেই প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছে এই উড়োজাহাজ সংস্থাটি। তবে খুব শিগগিরই চীনের সিভিল এভিয়েশন অথরিটির অনুমতি মিলবে বলে আশা করছেন সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা।

এছাড়াও মালদ্বীপের মালে ও শ্রীলঙ্কার কলম্বোতে ফ্লাইট চালু করতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। এ দুই দেশের সিভিল এভিয়েশনের কাছে ফ্লাইট পরিচালনা করতে অনুমতি চাওয়ার কাগজপত্র তৈরি করা হয়েছে। চলতি বছরের ৩১ ডিসেম্বরের মধ্যেই এ দুই দেশে ফ্লাইট চালু করতে পারবেন জানান সংশ্লিষ্টরা।

সংশ্লিষ্ট তথ্য মতে, দীর্ঘ চার বছর বন্ধ থাকার পর আগামী ১৩ মে থেকে ফের ঢাকা-দিল্লি-ঢাকা রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করবে বিমান। প্রাথমিকভাবে সপ্তাহের সোমবার, বৃহস্পতিবার ও শনিবার ১৬২ আসনের বোয়িং ৭৩৭-৮০০ উড়োজাহাজ দিয়ে এ রুটে সরাসরি ফ্লাইট পরিচালনা করা হবে।

ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে বিকেল ৩টায় ফ্লাইটটি ছেড়ে দিল্লির ইন্দিরা গান্ধী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে স্থানীয় সময় বিকেল ৫টা ২০ মিনিট পৌঁছাবে। আবার দিল্লির স্থানীয় সময় সন্ধ্যা ৬টা ২০ মিনিটে ফ্লাইটটি ছেড়ে ঢাকায় অবতরণ করবে রাত ৯টা ২০ মিনিটে।

২০১৪ সালের ২৩ আগস্ট লোকসানের অজুহাত দেখিয়ে এ রুটটি বন্ধ করে দেওয়া হয়।

অপরদিকে সৌদি আরবের মদিনা নগরীতে আগামী ২৭ অক্টোবর থেকে ফ্লাইট পরিচালনা করবে বিমান বাংলাদেশ। তবে দিনক্ষণ ঠিক হলেও কতটি ফ্লাইট পরিচালনা করা হবে সেই সিদ্ধান্ত জানায়নি কর্তৃপক্ষ। খুব শিগগিরই শিডিউল ঘোষণা করা হবে বলে জানা যায়।

জানা যায়, একসময় ২৬টি আন্তর্জাতিক গন্তব্যে উড়াল দিতো বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স। কিন্তু ক্রমাগত লোকসানে পর্যায়ক্রমে বন্ধ হয়ে যায় নিউইয়র্ক, লন্ডন, ম্যানচেস্টার, ফ্রাঙ্কফুর্ট, আমস্টারডাম, রোম, প্যারিস, ব্রাসেলস, টরেন্টো, হংকং, দিল্লি, নারিতা, নাগোয়া, ত্রিপলি, জার্কাতা, হংকং ও মুম্বাই রুট। ইউরোপ ও উত্তর আমেরিকা মিলে শুধু ঢাকা-লন্ডন রুট চালু আছে। সম্প্রতি সেখানেও স্লট কমিয়ে দেওয়া হয়েছে।

২০১৩ সালে মিয়ানমারের ইয়াঙ্গুনে সর্বশেষ আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চালু করেছিল বিমান। কর্তৃপক্ষ জানায়, মালদ্বীপের মালে ও শ্রীলঙ্কার কলম্বো রুটেও ফ্লাইট চালানোর জন্য দু’টি বোয়িং লিজ নেওয়ার প্রক্রিয়া চলছে।

এ ব্যাপারে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) শাকিল মেরাজ বলেন, বিমানের রুট নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। বিমানে প্রতিনিয়ত অত্যাধুনিক যেসব বোয়িং যুক্ত হচ্ছে এসব বোয়িং দিয়ে নতুন রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করা হবে।

Aviation News